শিরোনামঃ-

» ডিভি লটারী ২০২১ বাংলাদেশীদের জন্য প্রযোজ্য নয়

প্রকাশিত: ২৯. মে. ২০২০ | শুক্রবার

নিউইয়র্ক থেকে এমদাদ চৌধুরী দীপুঃ
ডিভি লটারী ২০২১ বাংলাদেশীদের জন্য প্রযোজ্য কী না এ বিষয়ে বিভ্রান্তি চলছে। বাংলাদেশ থেকে ডিভি লটারীর ফরম পূরন করছেন অনেকে।

এদিকে যুক্তরাস্ট্র থেকে বিভিন্ন সূত্র দাবী করছে এটি বাংলাদেশের জন্য পযোজ্য নয়। নিউইয়র্কে কাজ করেন বাংলাদেশী এটর্নী নাজমুল আলম বলেছেন, ডিভি লটারী বাংলাদেশীদের জন্য নয়, ফলে এ ব্যাপারে বিভ্রান্ত না হওয়ার জন্য সংশ্লিস্টদের আহ্বান জানিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (২৮ মে) রাতে, নিউইয়র্কে টাইম টেলিভিশনে আয়োজিত এক অনুষ্টানে এ তথ্য প্রকাশ করেন এটর্নী নাজমুল আলম।

অনুষ্টানে ইমিগ্রেশন নিয়ে আরো কিছু তথ্য দেন এটর্নী নাজমুল আলম। তিনি বলেন, বাংলাদেশে বর্তমানে ভিসা সেন্টারের সব কার্যক্রম বন্ধ রয়েছে। এর কারণ বিশীরভাগ স্টাফ যুক্তরাস্ট্রে চলে এসেছেন। বাংলাদেশে ভিসা সেন্টার কবে চালু হবে সেটি বাংলাদেশ সরকারের উপর নির্ভর করবে বলে জানান তিনি।

বাংলাদেশ যখন বলবে এখন নিরাপদ বাংলাদেশ করোনা মহামারী নিয়ে তখন যুক্তরাস্ট্রে অবস্থানরত বাংলাদেশ ভিসা সেন্টারের স্টাফরা ফিরে যাবেন।

এদিকে ন্যাশনাল ভিসা সেন্টার খোলা রয়েছে, অনলাইনে সব কার্যক্রম চলছে বলে জানান এটর্নী নাজমুল আলম।

জরুরী চিঠি প্রেরণ করা যাচ্ছে এবং জবাব দিচ্ছে ভিসা সেন্টার।

এদিকে ১৫ জুন পর্যন্ত ইমিগ্রেশন কোর্ট বন্ধ রয়েছে এমন তথ্য দিয়ে জানানো হয় ১৫ জুনের পরে যাদের মামলা অপেক্ষামান আছে তারা আইনী সেবা পাবেন।

তিনি বলেন, যুক্তরাস্ট্র ২৫ হাজার নার্সকে গ্রিনকার্ড প্রদান করবে। তাই বাংলাদেশীরা এই সুযোগ নেয়ার আহ্বান জানান তিনি।

এই সম্ভাবনা বাংলাদেশীদের কাজে লাগানোর আহ্বান জানান নাজমুল আলম।

এখনো নিয়ন্ত্রণে নেই যুক্তরাস্ট্রের করোনা পরিস্থিতি।

যুক্তরাস্ট্রে ওয়াল্ডোমেটারের তথ্যমতে ১১২৩ জনের মৃত্যু হয়েছে গত ২৪ ঘন্টায় বর্তমানে মৃতের সংখ্যা একলাখ ৩ হাজার ৩৩০ জন। শনাক্ত ১৭ লাখ ৬৮ হাজারের উপরে। নতুন করে শনাক্ত ২৩ হাজারের উপরে।

এদিকে একদিনে ৯ হাজার সুস্থ হয়েছেন,মোট সুস্থ হওয়ার সংখ্যা ৪ লাখ ৯৮ হাজারের উপরে। ৫ লাখ ছুইছুই।

নিউইয়র্কে সামগ্রিক পরিস্থিতি উন্নতির ধারায় রয়েছে। ২৪ ঘন্টায় মারা গেছেন মাত্র ১০০ জন, শনাক্ত হয়েছেন ২ হাজার। নানা সংখ্যায় বেশীরভাগ রাজ্যে মৃত্যু অব্যাহত রয়েছে। বেশী মৃত্যু নিউজার্সী, এ্যালিনইস, ম্যাসাচুসেট, ম্যারিল্যান্ড অঙ্গরাজ্যে।

নিউজার্সী, এ্যালিনইস, ক্যালিফোর্নিয়ায়, শনাক্ত এক লাখের উপরে রয়েছে। নিউইয়র্কে মোট শনাক্ত প্রায় ৩ লাখ ৭৬ হাজারের উপরে, মোট মৃত্যু ২৯ হাজার ৬৫৩ জন। সুস্থ ৭৫ হাজারের উপরে।

এছাড়া মেক্সিকোতে মৃত্যু বৃদ্ধি যুক্তরাস্ট্রের প্রান্তিক অঙ্গরাজ্যেগুলোর উদ্বেগের কারণ হয়ে দাড়িয়েছে।

অনেক অঙ্গরাজ্যে মেক্সিকানরা শনাক্ত হচ্ছেন, হাসপাতালে রোগী বাড়ছে।

বেকারত্ব বাড়ছে, বাড়ছে পর্যটন খাতে লোকসান সহ বিভিন্ন সেক্টরে লোকসান। অনেক বড় বড় প্রতিষ্টান দেউলিয়া হয়ে যাচ্ছে। টেস্টিংকে গুরুত্ব দিয়ে সব অঙ্গরাজ্যে বাড়িয়ে দেয়া হয়েছে টেস্টিং সেন্টার।

বিভিন্ন ফার্মেসীকে টেস্টিং এর অনুমতি দেয়া হচ্ছে। ইতিমধ্যে বিভিন্ন অঙ্গরাজ্যে ধাপে ধাপে রিওপেন করা হচ্ছে। লকডাউন তুলে দেয়া হয়েছিল এমন অনেক রাজ্যে আবার নাজুক পরিস্থিতি করোনার।

আনএমপ্লয়মেন্ট সুবিধার কারণে অনেক প্রতিস্টান লোকবল সংকটে পড়েছে। যুক্রাস্ট্রে বিভিন্ন অঙ্গরাজ্য অর্থনৈতিক সংকটে পড়েছে।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ১০৯ বার

Share Button

Callender

August 2020
M T W T F S S
« Jul    
 12
3456789
10111213141516
17181920212223
24252627282930
31