শিরোনামঃ-

» জালালাবাদ অন্ধ কল্যাণ সমিতির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা

প্রকাশিত: ১২. জানুয়ারি. ২০২৩ | বৃহস্পতিবার

মানবতার কল্যাণ সাধনের মাধ্যমেই আল্লাহর নৈকট্য লাভ করা সম্ভব : মেয়র আরিফুল হক চৌধুরী

স্টাফ রিপোর্টারঃ

সিলেট সিটি কর্পোরেশনের মেয়র, জালালাবাদ অন্ধ কল্যাণ সমিতির জীবন সদস্য আরিফুল হক চৌধুরী বলেছেন, মানবতার কল্যাণ সাধনের মাধ্যমেই আল্লাহর নৈকট্য লাভ করা সম্ভব।

অসহায় দরিদ্র জনগোষ্ঠীর চক্ষু চিকিৎসা সেবা নিশ্চিতে জালালাবাদ অন্ধকল্যাণ সমিতি নিরলসভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

জালালাবাদ চক্ষু হাসপাতালের কার্যক্রম আরো বেগবান করার লক্ষে সমাজের সকল বিত্তবান ও সামাজিক সংগঠনগুলোকে এগিয়ে আসতে হবে।

তিনি বৃহস্পতিবার (১২ জানুয়ারী) বিকেলে সিলেট নগরীর মেজরটিলা ইসলামপুরস্থ জালালাবাদ অন্ধ কল্যাণ সমিতির কনফারেন্স হলে সমিতির দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভা- ২০২২ এবং ২০২৩-২৪ সেশনের নির্বাচন অনুষ্ঠানে অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন। তিনি জালালাবাদ চক্ষু হাসপাতালের বাউন্ডারি দেয়াল ও সুন্দর্য্য বর্ধনে অন্যান্য উন্নয়নমূলক কাজের আশ্বাস দেন।

সমিতির সভাপতি ও জেলা প্রশাসক মো. মজিবর রহমান এর সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সাধারণ সভায় জেলা প্রশাসক তাঁর বক্তব্যে জালালাবাদ অন্ধ কল্যাণ সমিতি পরিচালিত জালালাবাদ চক্ষু হাসপাতালের উন্নয়নের লক্ষে প্রশাসনের পক্ষ থেকে সহযোগিতার আশ্বাস দেন। দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় সমিতির সহ সভাপতি, সিলেটের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মোহাম্মদ মোবারক হোসেন উপস্থিত ছিলেন।

সভার শুরুতে পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন, মো. আব্দুল হাসান। শুরুতে সমিতির সাধারণ সম্পাদক মুফতি মোহাম্মদ হাসান বিগত সভার কার্যবিরণী পাঠ শেষে ২০২২ সালের বার্ষিক প্রতিবেদন, অডিট প্রতিবেদন এবং ২০২৩ সালের বাজেট উপস্থাপন করেন। সমিতির আয়-ব্যয় এর হিসাব পেশ করেন কোষাধ্যক্ষ মাহবুব ছোবহানী চৌধুরী।

প্রতিবেদনের উপর আলোচনা অংশগ্রহণ করেন ও উপস্থিত ছিলেন, সহ সভাপতি ব্যারিস্টার মোহাম্মদ আরশ আলী, আফতাব চৌধুরী, জীবন সদস্য সুয়েব আহমদ মতিন, অধ্যাপক ডা. আবুল হাশেম চৌধুরী, মো. রিয়াজুল ইসলাম, মোয়াক্কির আহমদ সিদ্দিকী, অধ্যক্ষ সাব্বির আহমদ, সিদ্দিকী আফজাল, মো. মনিরুজ্জামান চৌধুরী প্রমুখ।

সভায় সমিতির সহ-সভাপতি ইকবাল আহমদ চৌধুরী সহ প্রয়াত অন্যান্য সকল সদস্যদের মৃত্যুতে শোক প্রস্তাব গৃহীত হয়।

বার্ষিক প্রতিবেদনে বলা হয় ২০২২ সালে জালালাবাদ চক্ষু হাসপাতালে ৩৫ হাজার ২ শত ২৪ জন রোগীকে আউট ডোরে চিকিৎসা সেবা প্রদান করা হয় এবং ৬৯৮ জন রোগীর চক্ষু অপারেশন করা হয়। এর মধ্যে ৭ জন রোগীর ফ্রি চক্ষু অপারেশন করা হয়।

দ্বিতীয় পর্বে নির্বাচন কমিশনার এডভোকেট এমাদ উল্লাহ শহিদুল ইসলাম শাহীন ২০২৩-২৪ সালের নব-নির্বাচিত কমিটির নাম ঘোষণা করেন। এসময় নির্বাচন পরিচালনা কমিটির সদস্য এডভোকেট মো. বদরুল হোসেন ও সৈয়দ মো. আবু সাদেক উপস্থিত ছিলেন।

২০২৩-২৪ সালের কমিটির দায়িত্বশীলরা হচ্ছেন সভাপতি সিলেটের জেলা প্রশাসক (পদাধিকার বলে), সহ সভাপতি ব্যারিস্টার মোহাম্মদ আরশ আলী, আফতাব চৌধুরী, সাধারণ সম্পাদক মুফতি মোহাম্মদ হাসান, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মো. আব্দুল গনি ও মো. সিদ্দিকুর রহমান, কোষাধ্যক্ষ মাহবুব সোবহানী চৌধুরী, সাংগঠনিক সম্পাদক মো. আব্দুল জব্বার জলিল, প্রচার সম্পাদক দেওয়ান গোলাম রব্বানী চৌধুরী, সদস্য ইশতিয়াক আহমদ সিদ্দিকী, আলিমুছ ছাদাত চৌধুরী, এ কে এম আহাদুস সামাদ, মো. আব্দুল মান্নান, অধ্যাপক ডা. এম.এ সালাম, ছয়েফ উদ্দিন চৌধুরী, তেহসিন চৌধুরী, সৈয়দ কাওছার আহমদ, অধ্যাপক ডা. এ.এইচ.এম এনায়েত হোসেন, শফিউল আলম চৌধুরী নাদেল, প্রকৌশলী মো, শুয়েব আহমদ মতিন।

দ্বি-বার্ষিক সাধারণ সভায় সমিতির সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুল জব্বার জলিল বাংলাদেশ সরকার কর্তৃক মানবকল্যাণে জাতীয় পদক পাওয়ায় সমিতির পক্ষ থেকে ফুলেল শুভেচ্ছা জানান সমিতির নেতৃবৃন্দ।

সভায় সমিতির সদস্য অধ্যাপক ডা. এ.এইচ.এম এনায়েত হোসেন সিলেট মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য্য নিযুক্ত হওয়ায় সমিতির পক্ষ থেকে অভিনন্দন জানানো হয়।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৮৯ বার

Share Button

Callender

March 2024
M T W T F S S
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031