শিরোনামঃ-

» আগামীতে নির্দিষ্ট জায়গায় মেলা অনুষ্ঠিত হবে : বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু

প্রকাশিত: ০৯. মার্চ. ২০১৯ | শনিবার

স্টাফ রিপোর্টারঃ বাণিজ্যমন্ত্রী টিপু মুনশি বলেছেন- ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পের মেলা নতুন নতুন উদ্যোক্তা তৈরী করতে ভূমিকা রাখে। মেলা ব্যবসায়ীদের মধ্যে আন্তরিক সম্পর্ক বৃদ্ধি করে। মেলা দেশের উন্নতি সমৃদ্ধি ও প্রবৃদ্ধি অর্জনে অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে।

এসএমইতে উদ্যোক্তা ও উদ্যোগি আছে এক্ষেত্রে আমরা ব্যাংকের সাথে বসে ক্ষুদ্র ঋণের ব্যাপারে আলোচনা করবো। যাতে ব্যাংকগুলো আরো সহজ কিস্তিতে ঋণ প্রদান করে। আজকের এই মেলা নারী উদ্যোক্তা তৈরী করতে অগ্রণী ভূমিকা রাখবে।

তিনি শনিবার (৯ মার্চ) বিকেলে সিলেটের মোহাম্মদ আলী জিমনেশিয়ামে অনুষ্ঠিত আঞ্চলিক এসএমই পণ্য মেলা ২০১৯ এর সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এসব কথা বলেন।

বানিজ্যমন্ত্রী বলেন- নারীরা দেশ পরিচালনা করছে, এই নারীরা সমৃদ্ধ বাংলাদেশ গড়তে অগ্রণি ভুমিকা পালন করবে। তিনি বলেন, আগামিতে মেলা হবে একটি নির্দিষ্ট জায়গায় মেলার জন্য জায়গায় খোঁজা হচ্ছে যেখানে শুধু মেলা হবে। বিশ্বের অর্থনীতিতে বাংলাদেশ চমক দেখাবে উল্লেখ করে বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন- বিশ্বের বৃহত্তম অর্থনীতির দেশগুলোর তালিকায় বিগত দিনের তুলনায় বর্তমান সরকারের কারনে বাংলাদেশের অবস্থানের দুই ধাপ অগ্রগতি হয়েছে।

সিলেটের জেলা প্রশাসক- এম. কাজী এমদাদুল ইসলামের সভাপতিত্বে ও জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের সহকারী কমিশনার ও নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট উম্মে সালিক রুমাইয়ার প্রানবন্ত সঞ্চালনায় এতে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন- অতিরিক্ত বিভাগীয় কমিশনার মো. তাহমিদুল ইসলাম, সাবেক সিটি মেয়র ও মহানগর আওয়ামীলীগের সভাপতি বদর উদ্দিন আহমদ কামরান, দি সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি’র সভাপতি খন্দকার শিপার আহমদ, এসএমই ফাউন্ডেশনের ডি এম আব্দুস ছালাম সরদার।

বক্তারা বলেন- অর্থনীতিতে এসএমই খাতের অবদান দুচার কথায় বলে শেষ করা যাবে না। ক্ষুদ্র ও মাঝারি শিল্পে মূলধন যোগানের মাধ্যমে উদ্যোক্তা তৈরি ও বেকারত্ব দূরীকরণে ভুমিকা রাখছে এসএমই খাত। এই খাতে জামানত বিহীন ঋণ প্রদান করছে দেশের অর্ধ শতাধিক ব্যাংক ও নন-ব্যাংক আর্থিক প্রতিষ্ঠান। সহজ শর্তে ঋণ প্রদান করে উদ্যোক্তা তৈরির পাশাপাশি ঋণ বিতরণ ও আদায়ের সাথেও জড়িতদের কর্ম সংস্থানের সুযোগ তৈরি হয়েছে।

গত ৩ মার্চ অনুষ্ঠিতব্য সপ্তাহব্যাপী এসএমই ফাউন্ডেশনের আয়োজনে যৌথভাবে এ মেলার আয়োজনে কাজ করে জেলা প্রশাসন সিলেট, এসএমই ফাউন্ডেশন এবং বিসিক সিলেট। সিলেট চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি, সিলেট মেট্রোপলিটন চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি, সিলেট উইমেন্স চেম্বার অব কমার্স এন্ড ইন্ডাস্ট্রি এবং নাসিব মেলায় ৫০টি ষ্টল অংশগ্রহণ করে। এতে ২৯টি ষ্টল স্থানীয় ছিল।

অংশগ্রহণকারী স্টলের মধ্যে ৫টি স্টলকে শ্রেষ্ঠ স্টল হিসেবে পুরষ্কার প্রদান করা হয়।

এই সংবাদটি পড়া হয়েছে ৩৪ বার

Share Button

Callender

March 2019
M T W T F S S
« Feb    
 123
45678910
11121314151617
18192021222324
25262728293031